শুভ নববর্ষ! শখের স্কুলে আমার আজকের লেখায় সবাইকে স্বাগতম! কেমন আছেন সবাই? ২০১৭ সাল চলে গেল, এল ২০১৮ সাল। নতুন বছরে নিশ্চই সবার নতুন নতুন পরিকল্পনা আছে, পেছনের সব গ্লানি আর দু:খ মুছে সবাই নিশ্চই প্রস্তুতি নিচ্ছেন নতুন বছরে আরো ভাল কিছু করার। সবার  নতুন বছরের যাত্রা শুভ হোক।

গান করতে বা শুনতে কে না পছন্দ করে! যাদের কণ্ঠ ভাল তারা তো গান করতেও ভালবাসে। কেমন হয় , যদি আপনার গানটি হুবহু স্টুডিওতে মিউজিক সমেত রেকর্ড করা যায় ঘরে বসেই? দারুন হবে নিশ্চই? আজকে আমি এমন দুটি এ্যাপের কথা আপনাদের বলব, যে এ্যাপ দুটি দিয়ে আপনি ঘরে বসেই রেকর্ড করতে পারবেন আপনার গান আর সেটা শেয়ার করতে পারবেন ফেসবুক বা ইউটিউবেও।

কথা না বাড়িয়ে চলুন আসল কথায় যাই। দুটি এ্যাপের প্রথমটি হচ্ছে StarMaker. এই এ্যাপটি দিয়ে আপনি যেটা করতে পারেন সেটা হচ্ছে, আপনি একটা নিজের কণ্ঠে গান রেকর্ড করবেন, গানের মিউজিক দিবে এই এ্যাপ। কীভাবে? সে কথাই বলছি।

অবশ্যই এই এ্যাপে গান করার সময় ইয়ারফোন বা হেডফোন ব্যবহার করবেন মাইক্রোফোন সমেত, এতে সাউন্ড ভাল পাবেন।
  1. StarMaker এ্যাপটি ইন্সটল করুন।
  2. এবার এ্যাপটির সার্চ অপশনে যান।
  3. নিজের পছন্দ মতো বাংলা, ইংরেজি, হিন্দি গান সিলেক্ট করুন।
  4. এবার Sing বাটনে প্রেস করুন।
  5. একটু ওয়েট করুন, গানটা লোড হবে।
  6. লোডিং শেষ হলে স্টার্ট বাটনে প্রেস করুন।

এবার শুনুন, মিউজিক শুরু হয়েছে এবং আপনার মোবাইল স্ক্রিণে গানটির লিরিক শো করছে। লিরিকের যে লাইনটির রং পরিবর্তন হবে সে লাইনটি আপনাকে গাইতে হবে। এভাবে পুরো গানটি আপনি গাইবেন। গান শেষ হলে শুনে নিন , পছন্দ মতো হলে শেয়ার করে দিন নিজের ইউটিউব চ্যানেল বা ফেসবুক পেইজে।

এবার আসুন দেখি এই এ্যাপটা দিয়ে কী কী করা যায়,

  • পছন্দমতো গান সিলেক্ট করে গাওয়া যায় মিউজিকের সাথে।
  • ডুয়েল কণ্ঠেও গান কোলাব করা যায়। সে ক্ষেত্রে যার সাথে কোলাব করবেন তারও এই এ্যাপটি ইনস্টল করা থাকতে হবে এবং তাকে অনলাইন হতে হবে।
  • কোরাস গাওয়ারও সুবিধা আছে।
  • গানে “পার্টি”, “হলরুম”, “নরমাল” ইত্যাদি ইফেক্টও দেয়া যায়।
  • অডিও এবং ভিডিও উভয় ভাবেই গান করা যায়।
এই এ্যাপটির সবচেয়ে বড় সুবিধা হচ্ছে, এ্যাপটি ফ্রি ইউজ করতে পারবেন।

এটার পেইড ভার্সনও আছে এবং তাতে আরো বেশি সুবিধা আছে। এই এ্যাপটির রেটিং 4.4

 

এবার দ্বিতীয় এ্যাপ,

এটিও বেশ জনপ্রিয়, এর নাম Smule. এটিও স্টার মেকার এর মতো ই গান সিলেক্ট করা যায় এবং অন্যান্য বিষয়গুলো স্টার মেকারের মতোই প্রায়। তবে কিছু কিছু ক্ষেত্রে এটির এডভান্টেজ একটু বেশি।  যেমন, এটাতে কালার চেঞ্জ করা যায়। সেপিয়া, গ্রিণ ইত্যাদি আভা দেয়া যায়। স্টুডিও ইফেক্ট দেয়া যায়। আরো দু একটাও আছে। তবে এই এ্যাপটি ডিজএডভান্টেজ হচ্ছে, এটি ফ্রিতে ডাওনলোড করা গেলেও ব্যবহার করার ফ্রি ভার্সন নেই, শুধু পেইড ভার্সন। এই এ্যাপটির রেটিং 4.2

যাই হোক, দুটোই এ্যাপ ই প্লে স্টোরে পাওয়া যায়। নাম লিখে সার্চ দিলেই হবে। তারপরও চিনতে পারার সুবিধার্থে আমি এখানে দুটো এ্যাপেরই লোগো দিলাম।

 

এখানে আমি খুবই সংক্ষেপে লিখেছি। এ্যাপগুলো ব্যবহারের সময় বাকিটুকু নিজেরাই বুঝে যাবেন, তাই আর লেখা বড় করিনি। সবাইকে অনেক অনেক ধন্যবাদ জানিয়ে আজকের মতো এখানেই।

এরকম আরও তথ্য পেতে  “শখের স্কুলের” সাথেই থাকুন।

লাইক দিন “শখের স্কুলের”  ফেসবুক পেজে

জয়েন করুন“শখের স্কুলের”  ফেসবুক গ্রুপে

সাবস্ক্রাইব করুন “শখের স্কুলের”  ইউটিউব চ্যানেল

টিউনারকে ফলো করুন>> 

অসংখ্য ধন্যবাদ। আল্লাহ হাফিজ

Similar Posts:

    None Found

Facebook Comments

সাধারণ জীবন যাপন পছন্দ, তবে স্ট্রাগল এলে জড়িয়ে নিই। প্রশ্ন করতে এবং উত্তর পেতে ভালবাসি, ভালবাসি প্রশ্ন পেতেও। শিখি, অন্যকে বিতরণ করে আনন্দ পাই। অহেতুক তর্ক ভাললাগে না, জানার জন্য নিজের বিশ্বাসের উল্টো প্রশ্ন করি।